কুষ্টিয়ায় নেশাগ্রস্ত প্রাক্তন স্বামী ?

এনামুল হক রাসেল এনামুল হক রাসেল

,সম্পাদক, দ্য বিডি রিপোর্ট

প্রকাশিত: ১:৫৭ অপরাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ১৪, ২০২০

ভেড়ামারা প্রতিনিধি: কুষ্টিয়া ভেড়ামারায় স্ত্রী কে এসিড নিক্ষেপ করে শরীরের বিভিন্ন জায়গা ঝলছে দিয়েছে তার প্রতারক প্রাক্তন স্বামী রিন্টু আলী। রবিবার রাত ৮টার দিকে উপজেলার গোলাপনগর গ্রামে ঘটনা ঘটে। সংবাদ পেয়ে ভেড়ামারা থানা অফিসার ইনচার্জ শাহ জালাল আসামি কে ধরতে তাৎক্ষণিক অভিযান নেমে পড়েছেন।

 

 

এ ঘটনায় এসিড নিক্ষেপকারী রিন্টু আলীর এসিডের আঘাতে মিনা খাতুন (৩০) ও তার মা বেবি খাতুনর (৫০) শরীরও ঝলসে গেছে। তাদের কে দ্রæত উদ্ধার করে ভেড়ামারা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।

 

 

 

মিনা খাতুনের চাচাত ভাই বাবর আলী জানান, আমার বোনের ২বছর আগে বাহাদুরপুর গ্রামের মোক্তার আলীর ছেলে রিন্টু আলীর বিবাহ হয়। এর কিছুদিন পরেই জানতে পারি সে অনেক আগে গোপনে বিয়ে করেছে তার ওই পক্ষের তিনটা সন্তান রয়েছে। এ অবস্থায় আমরা খোঁজ নিয়ে জানতে পারি সে নেশাগ্রস্ত তার পর আমার বোনকে ছাড়িয়ে (তালাক) নিই। এর পর মাঝে মধ্যেই সে ফোনে আমার বোনকে উত্যক্ত করে তার কু প্রস্তাবে রাজি না হলে সে খুন-জখমের হুমকি দেয়। আমার বোন প্রাকৃতির ডাকে (বাথরুম) যাওয়ার জন্য ঘর থেকে বের হলে পূর্বে থেকে ওৎ পেতে থাকা প্রাক্তন স্বামী রিন্টু আলী এসিড নিক্ষেপ করে। এসময় মিনার শরীরের বিভিন্ন জায়গায় জ্বালা পোড়া শুরু হয় সাথে থাকা মিনার মাও যন্ত্রণায় ছটফট করতে থাকে।

 

এ সময় হাতে থাকা টর্চ লাইটের আলোতে রিন্টু কে দেখে ফেলে চিৎকার দিলে সে দ্রæত পালিয়ে যায়। দুই জন কে গুরুতর আহত অবস্থায় হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। মিনা খাতুন গোলাপ নগর গ্রামের শাহজাহান আলীর মেয়ে।

 

 

ভেড়ামারা থানা অফিসার ইনচার্জ শাহ জালাল জানান, আসামী গ্রেফতারের অভিযান অব্যাহত রয়েছে। মামলা গ্রহনের প্রস্তুতি চলছে।

 

পাঠকের মতামতের জন্য কৃর্তপক্ষ দায়ী নয়। লেখাটির দায় সম্পূর্ন লেখকের।